আন্তর্জাতিক ক্রিকেটক্রিকেটবাংলাদেশ ক্রিকেট

হারিয়ে গিয়েছিলেন মিরাজ, দেখা মিললো বিদেশে

জ্যামাইকা টেস্টেও সেই একই বাংলাদেশ। সেই হতশ্রী পারফরম্যান্সে বৃত্তে ঘুরপাক খাচ্ছে টাইগাররা। তার মধ্যে উজ্জ্বল কেবল একজনই। স্পিনার মেহেদী হাসান মিরাজ। কিংস্টনে প্রথম ইনিংসে ৫ উইকেট নিয়েছেন এই স্পিনার। দুই বছর পর চতুর্থবারের মতো ৫ উইকেট নিলেন তিনি। হারিয়ে গিয়েছিলেন মিরাজ, দেখা মিললো বিদেশে।

চার বছর পর বিদেশের মাটিতে কোন বাংলাদেশী বোলার এই কীর্তি গড়লেন আবার। এর আগে ২০১৪ সালে তাইজুল ইসলাম সর্বশেষ এক ইনিংসে ৫ উইকেট নিয়েছিলেন, ওয়েস্ট ইন্ডিজেই।

টেস্টের প্রথম দিন ৩ উইকেট নিয়েছিলেন মিরাজ। আর দ্বিতীয় দিন ২ উইকেট নিয়ে ৫ উইকেট পূর্ণ করেন তিনি। ক্যারিবিয়ান ওপেনার ডেভন স্মিথকে দিয়ে উইকেটের খাতা খোলেন মিরাজ। তার দ্বিতীয় শিকার হন কিয়েরান পাওয়েল। এরপর একে একে ক্রেইগ ব্র্যাথওয়েট, কেমো পল ও মিগুয়েল কামিন্সকে আউট করে চতুর্থবারের মতো ৫ উইকেট নেন ২০ বছর বয়সী এই স্পিনার।

২০১৬ সাথে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্ট অভিষেক হয়েছিল মিরাজের। ঘরের মাঠে অভিষেক টেস্টের প্রথম ইনিংসেই ৫ উইকেট নিয়ে নিজের প্রতিভার জানান দিয়েছিলেন এই তরুণ। পরের টেস্টে তো করেন নিজের ক্যারিয়ার সেরা বোলিং। দুই ইনিংসেই নিয়েছেন ৬টি করে উইকেট।

 

বাংলাদেশ টিমকে সুখবর দিলেন মাশরাফি

স্ত্রী সুমির অসুস্থতার কারণে সৃষ্ট অনিশ্চিয়তা ও সংশয় কাটিয়ে মাশরাফি ওয়েস্ট ইন্ডিজ যেতে পারেন, তিনদিন আগে এমন আশার বাণী শুনিয়েছিলেন বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু।

আজ শনিবার এই কথা নিশ্চিত বলে দিলেন নান্নু। প্রধান নির্বাচকের আশাবাদী সংলাপ, ‘স্ত্রী সুমির নতুন করে কোন শারীরিক জটিলতা দেখা না দিলে ১৬ জুলাই সোমবার দিবাগত মধ্যরাতের ফ্লাইটে ওয়েস্ট ইন্ডিজ যাবে মাশরাফি।’

স্ত্রী সুমির অসুস্থতায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফর অনিশ্চিত হয়ে পড়েছিল তার। ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা ক্যারিবীয়দের বিপক্ষে তিন ম্যাচের সিরিজ খেলতে পারবেন কি না তা নিয়ে ছিলো সংশয়। অনিশ্চয়তার এই মেঘ দূর করে দিলেন প্রধান নির্বাচক।

সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে অর্থ্যাৎ নতুন করে আর কোন জটিলতার সৃষ্টি না হলে সোমবার রাতেই ওয়েস্ট ইন্ডিজের ফ্লাইটে চেপে বসবেন বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা।

প্রসঙ্গত, মাশরাফির স্ত্রী সুমি প্রায় দুই সপ্তাহ প্রচন্ড জ্বরে ভুগেছেন। ব্লাড টেস্টে জ্বরের কারণও বেরিয়ে এসেছে। রক্তে এক ধরনের ব্যাকটেরিয়া ধরা পড়েছে। সেই ব্যাকটেরিয়া প্রতিরোধ তথা জ্বর নিবারণে ১০টি ইনজেকশন পুশ করার কথা বলেছিলেন চিকিৎসকরা। রাজধানীর অ্যাপোলো হাসপাতালে রেখে সেই ইনজেকশন পুশ করা হয়েছে।

মাশরাফির ঘনিষ্ট সূত্র নিশ্চিত করেছে, গত বুধবার রাতে হাসপাতাল থেকে বাসায় এসেছেন তার স্ত্রী। ১৫ জুলাই রোববার পর্যন্ত বাকি ইনজেকশন বাসায়ই দেয়া হবে। এখনো পর্যন্ত তার স্ত্রীর শারীরিক অবস্থা উন্নতির দিকে হওয়ায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফর করার ব্যাপারে মনস্থির করেছেন মাশরাফি।

Related Articles

Close