আন্তর্জাতিক ক্রিকেটক্রিকেট

আমি টানা ৪ দিন ফুঁপিয়ে ফুঁপিয়ে কান্না করেছিলাম-স্মিথ

বল টেম্পারিংয়ের ঘটনায় ১ বছরের জন্য নিষিদ্ধ হয়েছিলেন অজি অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথ। শুধু তাই নয়, চলে যায় তার অধিনায়কত্বও। এমনকি বোর্ড থেকে বলেও দেওয়া হয় স্মিথ যদি আবারো ফিরেন তাহলে তাকে ২য় বার অধিনায়কের দায়িত্ব দেওয়ার আগে ভাববে অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দল।

তবে বল টেম্পারিংয়ের নিষিদ্ধ হওয়ার দিনটা বেশ কষ্টের ছিলো স্মিথের জন্য। হিন্দুস্তান টাইমকে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে স্মিথ বলেন ,’ সত্য কথা বলতে কি আমি টানা ৪ দিন ফুঁপিয়ে ফুঁপিয়ে কান্না করতেছিলাম। ভাগ্য ভালো যে আমি আমার কাছে আমার ফ্যামিলি এবং বন্ধুবান্ধবদের পেয়েছিলাম যারা কিনা আমাকে সবসময় সাপোর্ট দিয়েছে।

গ্লোবাল টুর্নামেন্টে স্মিথ খেলবেন টরেন্টো ন্যাশনালের হয়ে। সেইখানে স্মিথের দলের হয়ে খেলবেন ড্যারেন স্মিথ, কামরান আকমল, কাইরন পোলার্ডরা। আর সেই দলের কোচ হিসেবে থাকবেন ফিল সিমন্স।

 

মোস্তাফিজকে দলে রাখতামই না-ওয়ালশ

 

ইনজুরির কারনে বাংলাদেশ শিবিরে নেই মোস্তাফিজ। তার অভাব একটু হলেও টের পেয়েছে বাংলাদেশ দল। তবে মোস্তাফিজের ইনজুরির সমস্যাটা জানলে তাকে প্রস্তুতি ম্যাচের দলে খেলাতেনেই না কোচ ওয়ালশ।

ওয়ালশ বলেন ,’ ‘তাকে অবশ্যই মিস করবো। যদিও তার ইনজুরি বাকিদেরকে সুযোগ করে দিচ্ছে। আমি যদি তার ইনজুরি নিয়ে আগে থেকেই জানতাম তাহলে অবশ্যই তাকে দ্রুত ফিট করে তুলতে কাজ করতাম। আর প্রস্তুতি ম্যাচের আগে যদি জানতাম যে তার এই হাল তাহলে তাকে খেলাতামই না।’

ওয়ালশ আরো বলেন ,’ আমাদের বিষয়টি নিয়ে ভেবে দেখতে হবে। এই নিয়ে দ্বিতীয়বার আইপিএল থেকে ইনজুরি নিয়ে ফিরেছে সে। বিষয়টি নিয়ে আমাদের আরও সতর্ক হতে হবে। দুর্ভাগ্যবশত বলতে হচ্ছে ক্রিকেট খেললে ইনজুরি হবেই। তবে আমাদের বিষয়টা খুঁজে বের করতে হবে তাকে কিভাবে ফিট রাখা যায়। সে এখনও তরুণ এবং অনেক ট্যালেন্ট তার মধ্যে। তাকে সঠিক ভাবে পর্যালোচনা করতে হবে এটাই আমাদের কাজ। নাহলে মোস্তাফিজও হারিয়ে যাবেন অচিরেই।

Related Articles

Close