ফুটবল

বাসেলকে ৪-০ গোলে হারিয়ে শেষ আটের পথে সিটি

প্রিমিয়ার লিগের জয়ের ধারা চ্যাম্পিয়ন্স লিগেও ধরে রাখলো ম্যানচেস্টার সিটি। মঙ্গলবার সুইজারল্যান্ডের ক্লাব বাসেলের মাঠে স্বাগতিকদের ৪-০ গোলে বিধ্বস্ত করে শেষ আটের পথে অনেকটা এগিয়ে গেল প্রিমিয়ার লিগের পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে থাকা দলটি।

প্রতিপক্ষের মাঠে ম্যাচের শুরু থেকেই বলের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে আক্রমণ করে খেলতে থাকে ম্যানচেস্টার সিটি। এরই ধারাবাহিকতায় ম্যাচের ১৪ মিনিটে দলকে লিড এনে দেন ইলকাই গুন্ডোগান। কেভিন ডি ব্রুইনের কর্নার থেকে উড়ে আসা বল হেডে জালে জড়ান জার্মানির এই তারকা।

চার মিনিট পর ব্যবধান দ্বিগুণ করেন বার্নাদো সিলভা। বাঁ-দিক থেকে রাহিম স্টার্লিংয়ের ক্রস থেকে পাওয়া বল কোনাকুনি শটে জালে জড়ান পর্তুগিজ এই মিডফিল্ডার। ম্যাচের ২৩ মিনিটে দলকে ৩-০ গোলে এগিয়ে দেন দারুণ ছন্দে থাকা আগুয়েরো। প্রায় ২২ গজ দূর থেকে নিচু শটে স্কোরশিটে নাম লেখান আর্জেন্টাইন এই ফরোয়ার্ড।

বিরতি থেকে ফিরে ব্যবধান আরও বাড়িয়ে জয় নিশ্চিত করে ফেলেন ইলকাই গুন্ডোগান। আগুয়েরোর পাস পেয়ে এক জনকে কাটিয়ে প্রায় ২০ গজ দূর থেকে উঁচু শটে পোস্ট ঘেঁষে নিজের দ্বিতীয় গোলটি করেন জার্মান মিডফিল্ডার। বাকি সময় আর কোন গোল না হলে বড় জয়ের আনন্দে নিয়ে মাঠ ছাড়ে গার্দিওলার শিষ্যরা। আগামী মাসে ম্যানচেস্টার সিটির মাঠ ইতিহাদ স্টেডিয়ামে হবে ফিরতি পর্ব।

‘মাথা’ খুঁজছে বিসিবি

হাত, পা, চোখ, কান সবই আছে। নেই শুধু মাথা। কিছুদিন আগে সাকিব আল হাসানও নাকি এক আলোচনায় বিসিবির শীর্ষ কর্তাদের বলেছেন, ‘দলে একটা মাথা দরকার।’

‘মাথা’ মানে দলের সর্বেসর্বা, একজন প্রধান কোচ। চন্ডিকা হাথুরুসিংহে চলে যাওয়ার পর এখন পর্যন্ত সেই ‘মাথা’ খুঁজে পায়নি বিসিবি। ঢাকায় এসে সাক্ষাৎকার দিয়ে যাওয়া ফিল সিমন্স ও রিচার্ড পাইবাস এর মধ্যেই অন্য দুটি বোর্ডে চাকরি নিয়েছেন। এর আগেই অবশ্য বিসিবিও তাঁদের প্রতি আগ্রহ হারিয়ে ফেলেছিল। ত্রিদেশীয় সিরিজের আগে বর্তমান কোচিং স্টাফের সঙ্গে টেকনিক্যাল ডিরেক্টর হিসেবে জুড়ে দেওয়া হয় খালেদ মাহমুদকে। তাঁর দায়িত্বটা আপৎকালীন হলেও এরপর থেকে বিসিবির নতুন কোচ খোঁজার কাজ অনেকটাই স্থবির হয়ে পড়ে। যেন মাহমুদের মধ্যেই সমাধান খোঁজা হচ্ছিল সব সমস্যার।

মোহ ভঙ্গ হতে সময় লাগেনি। ত্রিদেশীয় সিরিজের ব্যর্থতা এবং শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে মিরপুর টেস্টে শোচনীয় পরাজয়ের পর বিসিবির চিন্তার সে স্রোতও এখন সাকিবের ভাবনার সঙ্গে মিলে যাচ্ছে। অভিজ্ঞ বিদেশি কোচের অভাবে এই সিরিজে তাঁদের কাছেও বাংলাদেশ দলকে মনে হচ্ছে কাপ্তানবিহীন জাহাজ। বর্তমান পরিস্থিতি কাটিয়ে উঠতে সবার আগে প্রয়োজন দলের ‘প্রধান কোচ’ পদটাকে এমন কাউকে দিয়ে পূরণ করা, যাঁকে অভিভাবক মানা যেতে পারে। আবারও তাই তৎপর হয়ে উঠেছে বোর্ড। শিগগিরই সে রকম কাউকে না পেলে বিকল্প ভাবনাও আছে। কাল বিসিবি কার্যালয়ে হওয়া ক্রিকেট পরিচালনা কমিটির সভায় মূল আলোচ্য হয়ে উঠেছিল এসবই।

কমিটির প্রধান আকরাম খান জানিয়েছেন, ‘দ্রুতই বিদেশি প্রধান কোচ পাওয়া না গেলে আমাদের চিন্তা আছে দলে এখন যাঁরা বিদেশি কোচ আছেন, আপাতত তাঁদের কাউকে প্রধান কোচের দায়িত্ব দেওয়া। সামনে নিদাহাস কাপসহ অনেক খেলা আছে। আগামী কয়েক দিনের মধ্যে নতুন কোচ পাওয়া না গেলে এ ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিতে হবে।’ পরিস্থিতি যা, তাতে বর্তমান পেস বোলিং কোচ কোর্টনি ওয়ালশ, সহকারী কোচ রিচার্ড হ্যালসল এবং ব্যাটিং পরামর্শক সাইমন্ড হ্যালমটের মধ্যে থেকেই কারও আপৎকালীন প্রধান কোচ হওয়ার সম্ভাবনা বেশি। ক্রিকেট পরিচালনা কমিটির সদস্য ও মিডিয়া কমিটির প্রধান জালাল ইউনুসের কথায়ও সেই আভাস, ‘এই মুহূর্তে আমাদের রাডারে এমন কেউ নেই যাঁকে প্রধান কোচ করা যায়। সে ক্ষেত্রে এখন যাঁরা দলের সঙ্গে আছেন, তাঁদের একজনকে প্রধান কোচের দায়িত্ব দেওয়া হতে পারে।’ টেকনিক্যাল ডিরেক্টর খালেদ মাহমুদের এই সিরিজের পর দলের সঙ্গে থাকার সম্ভাবনা নেই বললেই চলে। তিনি নিজেও অবশ্য আর থাকতে চাচ্ছেন না।

আইপিএল-সিপিএলের যুগে হাইপ্রোফাইল প্রধান কোচ পাওয়ার আশা করছে না বিসিবি। ‘আমাদের মানসিক প্রস্তুতি আছে যে আমরা হয়তো বড় কাউকে পাব না। তবে ইংল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়া ও দক্ষিণ আফ্রিকার প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে অনেক ভালো ভালো কোচ আছেন যাঁরা আন্তর্জাতিক দলের দায়িত্ব নিতে আগ্রহী হবেন। আমরা সেসব জায়গায়ও খোঁজখবর নেব’-বলেছেন ক্রিকেট পরিচালনা কমিটির এক সদস্য। ব্যাটিং কোচ হিসেবে দুটি হাইপ্রোফাইল নামই আছে বিসিবির সামনে। দক্ষিণ আফ্রিকার নিল ম্যাকেঞ্জি বা অস্ট্রেলিয়ার মাইকেল বেভান। কারও কাছ থেকেই অবশ্য এখনো ইতিবাচক সাড়া আসেনি।

সাকিবের অনুপস্থিতিতে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজে অধিনায়ক তামিম বা মাহমুদউল্লাহর একজন। ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগ থেকেই প্রস্তাব করা হয়েছে তাঁদের নাম। কাল অনুশীলনে তামিমের আঙুলে পাওয়া চোট ভয় ধরিয়ে দিয়েছিল সবার মনে। পরে জানা গেছে, চোটটা গুরুতর নয়।

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close